বাড়িতেই ফুট স্পা করার সহজ ঘরোয়া ৫টি উপায়

ফুট স্পা করার সহজ ঘরোয়া ৫টি উপায়- সারা সপ্তাহের কাজের পর উইকএন্ড যখন আসে, আপনার পা নিশ্চয়ই অবধারিত ভাবেই আর চলতে চায় না! মনে হয় নিশ্চয়ই যে সারাক্ষণ যদি পায়ের ওপর পা তুলে বসে থাকতে পারতেন, কি ভালোই না হতো!কিন্তু কাজের চাপে তার তো আর জো নেই!তা ব্যস্ত জীবনে কাজের

ফাঁকে পার্লারে যেতে নিশ্চয়ই মন চায় না? তাই আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি ফুট স্পা করার সহজ ঘরোয়া উপায়। চলুন তবে জেনে নেওয়া যাক ফুট স্পা করার সহজ ঘরোয়া উপায়- ১.পা ভিজিয়ে বসে থাকুন উপকরণঃ যে কোনো এসেনশিয়াল অয়েল কয়েক ফোঁটা। পদ্ধতিঃ ফুট স্পা করার কিন্তু এটা প্রথম ধাপ, সে আপনি বাড়িতেই করুন আর পার্লারেই। একটা বালতির মধ্যে হালকা গরমের থেকে

একটু বেশী গরম জল নিন। এবার ওতে কয়েক ফোঁটা যে কোনো এসেনশিয়াল অয়েল দিয়ে আপনার পা ওতে মিনিট ১০-১৫ ভিজিয়ে রাখুন। আপনার পা যদি ফোলার টেন্ডেন্সি থাকে, তাহলে জলের মধ্যে পিপারমিন্ট অয়েল দিন। আর ক্লান্ত পা-কে যদি আরাম দিতে চান,তাহলে আপনি ল্যাভেন্ডার এসেনশিয়াল অয়েলও দিতে পারেন। আর পা ব্যথা তাড়াতাড়ি সারাতে চাইলে লেমন অয়েল দিন। আপনি জলের মধ্যে এমনি বাদাম তেলও দিতে পারেন। ২. নখ আর কিউটিকলের যত্ন সারা সপ্তাহের পর পায়ের নখে একগাদা ময়লা জমে

থাকা তো স্বাভাবিক। তাই নখ পরিষ্কার করা খুবই দরকারি কাজ। পদ্ধতিঃ বালতি থেকে পা তুলে ভালো করে মুছে নিন। এবার নেল কাটার দিয়ে নখ কাটুন, আর নখ থেকে ব্রাশ দিয়ে ঘষে ভালো করে ময়লা বের করুন। ৩. এক্সফোলিয়েশন ফুট স্পায়ের ক্ষেত্রে এক্সফোলিয়েশন কিন্তু খুব গুরুত্বপূর্ণ জিনিস। উপকরণঃ পিউমিক স্টোন। এটা আপনি অনলাইনে কিনতে পেয়ে যাবেন। পদ্ধতিঃ পিউমিক স্টোন দিয়ে ঘষে ঘষে আপনার পায়ের মরা চামড়া এক্সফোলিয়েট করে ফেলুন। এরপর স্ক্রাব করতে পারেন। দোকান থেকে কেনা স্ক্রাবার

যদি ব্যবহার করতে না চান, তাহলে বাড়িতেই বানিয়ে নিন। উপকরণঃ কলা ১ টা মুসুর ডালের গুঁড়ো ২ চামচ পদ্ধতিঃ কলা স্ম্যাশ করে ওতে মুসুর ডালের গুঁড়ো মেশান। এবার পায়ে ওটা ভালো করে ম্যাসাজ করে ঘষে ঘষে এক্সফোলিয়েট করুন। দেখবেন পায়ের মরা চামড়া সব দূর হয়ে গেছে। ৪. ফুট মাস্ক এবার হল সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ অংশ। ফুট মাস্ক আপনি বাড়িতেই বানিয়ে নিতে পারেন। উপকরণঃ রোলড ওটস ৩ চামচ ময়দা ২ চামচ মধু ৩ চামচ বাদাম তেল ১ ফোঁটা পদ্ধতিঃ সব উপকরণ একসাথে মিশিয়ে একটা মাস্ক

বানান। তারপর আপনার পায়ে আর গোড়ালিতে ভালো করে মেখে ২০-২৫ মিনিট রেখে দিন। শুকিয়ে গেলে সার্কুলার মোশনে ম্যাসাজ করে আস্তে আস্তে ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন পা কত ফ্রেশ লাগছে। ৫. নেল পালিশ এবার পালা আপনার পা-কে রঙিন করে তোলার। পছন্দের নেল পালিশ বেছে নখে ভালো লাগান। দেখবেন নিজের কাছে নিজের পা কত সুন্দর লাগছে। ৬. পায়ের ম্যাসাজ নেল পালিশ

শুকিয়ে যাওয়ার পর পালা পায়ের ম্যাসাজের। সারা সপ্তাহের ধকলের পর আপনার পা কিন্তু এটুকু যত্ন দাবী করেই। পায়ে যে কোনো ময়েশ্চারাইজিং ক্রিম লাগান ও ভালো করে ম্যাসাজ করুন। নিভিয়া সফট লাইট ময়েশ্চারাইজিং ক্রিম কিনতে পারেন। এটা আপনার পা-কে নরম আর স্মুদ রাখতে সাহায্য করে।

About Susmita Roy

Check Also

শিশুর দাঁত ভালো রাখবে যে খাবার

শিশুর দাঁত ভালো রাখবে যে খাবার

দাঁত থাকতে দাঁতের মর্যাদা নেই বলে যে একটা কথা আছে, এটা সবার ক্ষেত্রেই খাটে। তবে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.