শিশুর দাঁত ভালো রাখবে যে খাবার

দাঁত থাকতে দাঁতের মর্যাদা নেই বলে যে একটা কথা আছে, এটা সবার ক্ষেত্রেই খাটে। তবে নবজাতক শিশুর ক্ষেত্রে আরো বেশি খাটে। আপনার ছোট্ট সোনামনির দাঁত ও মাড়ির যত্নে অবহেলার কারণে দেখা দিতে পারে অনেক অনেক সমস্যা। সন্তানের দাঁত নিয়ে মা-বাবার চিন্তার

শেষ নেই। চকলেট থেকে চিপ্‌স- নানা ধরনের অস্বাস্থ্যকর খাবারের প্রতি শিশুদের ঝোঁক থাকা অস্বাভাবিক নয়। আর এই ধরনের খাবার বেশি খেলে দেখা দিতে পারে দাঁতের সমস্যা। দাঁত ভালো রাখতে বিভিন্ন ক্ষতিকর খাবারের পরিমাণ কমাতে হবে। তেমনই খেতে হবে এমন কিছু খাবার, যা ভালো রাখবে দাঁত। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক কী কী খাবার খেলে দাঁত ভালো থাকবে সে সম্পর্কে-

1. বাদাম- স্বাদ ও স্বাস্থ্য দুই-ই ভালো রাখে এমন খাবার কিন্তু বেশ বিরল। বাদাম তেমনই একটি খাবার। বিশেষ করে কাঠবাদাম, ব্রাজিল নাট ও কাজু দাঁতের জন্য বেশ ভাল। বাদমে থাকে প্রচুর পরিমাণে ক্যালশিয়াম ও ফসফরাস। তা দাঁতের জন্য বেশ ভাল। পাশাপাশি, বাদামে থাকে ভিটামিন ডি, যা দাঁত ভালো রাখে। বাদামে শর্করার পরিমাণও থাকে বেশ। ফলে বাদাম খাওয়ার পর দাঁতে জীবাণুর বাড়বাড়ন্ত হয় না। সন্তান

হালকা কিছু খাওয়ার বায়না করলে খাওয়াতে পারেন বাদাম।
2. চিজ- বাদামের মতো চিজও খেতে সুস্বাদু। তাই খুদেরা খেয়ে নেয় সহজেই। চিজ যেহেতু দুগ্ধজাত পদার্থ, তাই এতে প্রচুর পরিমাণে ক্যালশিয়াম থাকে। পাশাপাশি, চিজ মুখগহ্বরের অম্ল-ক্ষারের ভারসাম্য রক্ষা করতেও সাহায্য করে। ফলে দাঁতের ক্ষয় কমে। হ্রাস পায় ক্যাভিটির আশঙ্কাও।
4. পানীয়- নরম পানীয় খেতে খুবই পছন্দ করে বাচ্চারা। কিন্তু এই নরম পানীয়তে থাকে অতিরিক্ত চিনি। কিছু ক্ষেত্রে থাকে অতিরিক্ত কার্বন

ডাইঅক্সাইডও। তাই এই ধরনের পানীয় দাঁতের জন্য বিপদ ডেকে আনে। এই ধরনের পানীয়ের বদলে সন্তানকে দুধ খেতে উৎসাহ দিন। তবে অনেক শিশুই দুধ খেতে চায় না। এখন দুধের সঙ্গে খাওয়ার জন্য বেশ কিছু সুস্বাদু শিশুদের উপযোগী খাবার বাজারে কিনতে পাওয়া যায়। দুধে মিশিয়ে দিতে পারেন সেই খাবারও।

About Susmita Roy

Check Also

ঘাড়ের ট্যান ও কালো দাগ থেকে মুক্তি পাওয়ার সহজ উপায়!

ঘাড়ের ট্যান ও কালো দাগ থেকে মুক্তি পাওয়ার সহজ উপায়!

আবহাওয়ার পরিবর্তন এবং দীর্ঘক্ষণ ঘরের বাইরে থাকার কারণে ত্বকে অত্যধিক ট্যান পড়ে যায়। ট্যানের ফলে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *